২২ জুলাই ২০১২, সোমবার, ০৯:০৪:১৯ অপরাহ্ন


বৃষ্টিতে খেলার ফল হয়নি
মুশফিকের দ্রুততম সেঞ্চুরী
নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট করা হয়েছে : ২০-০৩-২০২৩
মুশফিকের দ্রুততম সেঞ্চুরী সিলেটে দ্বিতীয় ম্যাচে সেঞ্চুরীর পর মুশফিক /ছবি সংগৃহীত


আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে রেকর্ডের পর রেকর্ড হচ্ছে বাংলাদেশের। এবার ব্যাট হাতে দ্রুততম সেঞ্চুরী করেছেন মুশফিকুর রহীম। সিলেটে ৬০ বলে সেঞ্চুরী করেছেন এ ব্যাটসম্যান। এ পর্যন্ত সাকিব আল হাসান ধরে রেখেছিলেন ওই রেকর্ড। তিনি করেছিলেন জিম্বাবুয়ের বিরুদ্ধে ৬৩ বলে। সেটা ছিল ২০০৯ এ। এতদিন ওই রেকর্ডই বহাল ছিল। ২০২৩ এ এসে সেটা টপকে গেছেন দেশের আরেক কৃতি ব্যাটসম্যান মুশফিক।

অবশ্য এ ম্যাচে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে সেঞ্চুরী করাটা তার জন্য কিছুটা টাফও ছিল। কেননা তিনি ব্যাট হাতে নেমেছেন ৬ নাম্বারে। ৩৩. ২ ওভারে যখন নাজমুল শান্ত আউট হন তখন এসেছিলেন ক্রিজে। তাওহীদ রিদয়ের সঙ্গে জুটি বেধে প্রথম তিনি দলের স্কোরটা চ্যালেঞ্চিং পর্যায়ে নিয়ে যেতে চেষ্টা করার পর ইনিংসের শেষ প্রান্তে সুযোগ চলে আসে সেঞ্চুরীর। ইনিংসের শেষ বলটা মোকাবেলা করে ১ রান নিয়ে সেঞ্চুরীর লক্ষ্যে পৌছে যান তিনি। ১০০ রানে অপরাজিত তিনি। ৬০ বলে ওই রান করতে হাকান দুটি ছক্কা ও ১৪টি চারের মার।  এর আগে হাফ সেঞ্চুরী করেছিলেন তিনি ৩৩ বলে। অর্থাৎ দ্বিতীয় হাফ সেঞ্চুরীটা আসে তার ২৭ বলে। 

এদিকে বাংলাদেশের দলীয় সর্বোচ্চ রান গড়ারও রেকর্ড হয়েছে এ ম্যাচে। এ আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষেই রেকর্ড গড়েছিল পুরানোটা টপকে। সেটা ছাড়িয়ে এবার ৩৪৯/৬ করেছে তারা এ ম্যাচে। মুশফিক ছাড়াও এ ম্যাচে চমৎকার তিনটি ইনিংস রয়েছে। সেটা হলো লিটনের ৭১ বলে ৭০, নাজমুল শান্ত’র ৭৭ বলে ৭৩ ও তাওহীদের ৩৪ বলে ৪৯ রান। 

এদিকে এরপর আয়ারল্যান্ডের  ব্যাটিংয়ে নামার কথা থাকলেও প্রচন্ড বৃষ্টি শুরু হয়। অপেক্ষা করে শেষ পর্যন্ত ২০ ওভারের কার্টল ইনিংস হওয়ারও চেষ্টা করা হয়। কিন্তু সেটাও সম্ভবপর হয়নি। ফলে ম্যাচ অমিমাংসীত ফল দেখিয়ে শেষ হয় ম্যাচ। 

শেয়ার করুন