২২ জুলাই ২০১২, সোমবার, ০৭:৩৭:২৮ অপরাহ্ন


আবুল কালাম আজাদ সভাপতি, হুমায়ুন কবির শাবীব সম্পাদক নির্বাচিত
শিক্ষা কারিকুলামের নামে শিক্ষা সংস্কৃতি ধ্বংসের চক্রান্ত চলছে- অধ্যাপক মাহবুব
নিজস্ব প্রতিনিধি
  • আপডেট করা হয়েছে : ০৮-০৭-২০২৪
শিক্ষা কারিকুলামের নামে শিক্ষা সংস্কৃতি ধ্বংসের চক্রান্ত চলছে- অধ্যাপক মাহবুব


ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও জাতীয় শিক্ষক ফোরামের সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি অধ্যাপক মাহবুবুর রহমান বলেছেন, প্রিয় মাতৃভূমি বাংলাদেশকে একটি সমৃদ্ধ কল্যাণ রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে সাংস্কৃতিক কর্মী ও সুশীল সমাজকে এগিয়ে আসতে হবে। বর্তমান সরকার নতুন কারিকুলামের নামে আগামী প্রজন্মকে মেধাশূন্য করার চক্রান্তে লিপ্ত রয়েছে। পাঠ্যপুস্তকের পাতায় পাতায় বি- জাতীয় কৃষ্টি কালচার ও ভিনদেশী সংস্কৃতি আমদানি করা হয়েছে। ৯২ ভাগ মুসলমান অধ্যুষিত বাংলাদেশে এ কারিকুলাম চলতে পারে না।


আজ সোমবার বিকেলে ইসলামী সাংস্কৃতিক জোট আয়োজিত কাউন্সিল অধিবেশনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। রাজধানীর ধোলাইপাড়স্থ একটি মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত গজলশিল্পী মাওলানা আবুল কালাম আজাদের সভাপতিত্বে জোটভুক্ত সকল সাংস্কৃতিক সংগঠন সমূহের প্রতিনিধিদের স্বতঃস্ফূর্ত উপস্থিতিতে অনুষ্ঠিত অধিবেশনে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় শিক্ষা ও সংস্কৃতি বিষয়ক সম্পাদক মাওলানা এবিএম জাকারিয়া ও কেন্দ্রীয় কৃষি ও শ্রম বিষয়ক সম্পাদক আলহাজ্ব আব্দুর রহমান। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, ইসলামী আন্দোলনের কেন্দ্রীয় নেতা ও ঢাকা মহানগর উত্তরের সেক্রেটারি সাবেক ছাত্রনেতা মাওলানা আরিফুল ইসলাম, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক  (মোমেনশাহী বিভাগ) সাবেক ছাত্রনেতা জি এম রুহুল আমিন, মাওলানা সাইফুল ইসলাম মাওলানা আব্দুর রহমান বেতাগী।


প্রধান অতিথির বক্তব্যে অধ্যাপক মাহবুবুর রহমান আরো বলেন, অপরদিকে আকাশ সংস্কৃতির সয়লাবে প্রজন্মের নৈতিক চরিত্র ধ্বংস হতে চলেছে। মাদকাসক্ত প্রজন্ম তৈরি হচ্ছে। উদ্বেগের বিষয় হচ্ছে এইচএসসি পরীক্ষার্থী পরীক্ষার হলে গাঁজাসহ পুলিশের হাতে গ্রেফতার হওয়ার সংবাদ জাতিকে ভাবিয়ে তুলছে। কিশোর গ্যাং এর অত্যাচারে জাতি আজ অতিষ্ঠ। তিনি বলেন, সকল অপশক্তি ও অপসংস্কৃতির বিরুদ্ধে ইসলামিক সাংস্কৃতিক জোটকে বলিষ্ঠ ভূমিকা পালন করতে হবে। জোটকে ইস্পাত কঠিন দৃঢ়তা নিয়ে সকল বাঁধার প্রাচীর ডিঙিয়ে লক্ষ্য পানে এগিয়ে যেতে হবে। তিনি চলমান শিক্ষক আন্দোলন ও কোটা বিরোধী আন্দোলনের প্রতি সমর্থন ব্যক্ত করে অনতিবিলম্বে সরকারকে দাবি মেনে নেওয়া আহবান জানান।

সভাশেষে ইসলামিক সাংস্কৃতিক জোটের ২০২৪-২৫ সেশনের জন্য মাওলানা আবুল কালাম আজাদকে সভাপতি ও হুমায়ুন কবির শাবিবকে সাধারণ সম্পাদক হিসাবে ঘোষণা করা হয়। সবশেষে দোয়া ও মোনাজাতের মধ্য দিয়ে কাউন্সিল অধিবেশনের সমাপ্তি ঘোষণা করা হয়।


শেয়ার করুন